সুদেষ্ণা মন্ডল :: সংবাদ প্রবাহ :: নোদাখালী :: সাতসকালে বাজি কারখানায় বিস্ফোরণ। এই ঘটনায় এখনও পর্যন্ত তিনজনের মৃত্যু হয়েছে। দক্ষিণ ২৪ পরগনার নোদাখালি থানার মোহনপুর হাটের কাছে সোনাড়িয়া মোড়ের ঘটনা। পুলিশ বিস্ফোরণের কথা স্বীকার করলেও প্রাণহানির বিষয়টি এখনও নিশ্চিত করেনি ।স্থানীয়দের দাবি, দক্ষিণ ২৪ পরগনার নোদাখালি থানার মোহনপুর হাটের কাছে সোনাড়িয়া মোড়ের বাসিন্দা অসীম মণ্ডলের বাড়িতে অবৈধভাবে বাজি তৈরি হত। তা বিশেষ কেউই জানত না।

বুধবার সকালে ওই বাড়িতে বাজি তৈরির কাজ চলছিল। সেই সময় পরপর তিনবার বিস্ফোরণ ঘটে। প্রচণ্ড শব্দে কেঁপে ওঠে এলাকার বাসিন্দারা । বিস্ফোরণের শব্দ পেয়ে ওই বাড়িটির কাছে জড়ো হয় স্থানীয়রা । তারা দেখে দাউদাউ করে বাড়িটি আগুন জ্বলছে। মুহূর্তের মধ্যে কালো ধোঁয়ায় ঢেকে যায় গোটা এলাকা। খবর দেওয়া হয় পুলিশে । নোদাখালি থানার পুলিশ তড়িঘড়ি ঘটনাস্থলে পৌঁছয়।

বাড়ির ভিতর থেকে গৃহকর্তা অসীম মণ্ডল, তার মামিমা এবং বাজি তৈরির কারিগর অতিথি হালদারকে অগ্নিদগ্ধ অবস্থায় উদ্ধার করা হয়। সূত্রের খবর, অগ্নিকাণ্ডে এখনও পর্যন্ত তিনজনের মৃত্যু হয়েছে। যদিও পুলিশের তরফে এ বিষয়ে এখনও নিশ্চিত করে কিছুই জানানো হয়নি।বিস্ফোরণের খবর পেয়ে দমকলের একটি ইঞ্জিনও ঘটনাস্থলে যায়। তড়িঘড়ি আগুন নেভানোর কাজে লাগে দমকলকর্মীরা। সাতগাছিয়ার বিধায়ক মোহনচন্দ্র নস্কর ঘটনার খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে যান। তিনি জানান, বিস্ফোরণে দুজনের মৃত্যুর খবর পেয়েছি । কয়েকজন আহত হয়েছে বলেও খবর পেয়েছি। এখনো উদ্ধারকাজ চলছে।