আন্তর্জাতিক বিনোদন চ্যানেলের অ্যাপ হ্যাক করে বেআইনি ব্যাবসা , গ্রেফতার যুবক

নিজস্ব সংবাদদাতা :: আলিপুরদুয়ার :: সংবাদ প্রবাহ :: ইদানিং ott প্লাটফর্মের জনপ্রিয়তা যথেষ্ট তুঙ্গে । যার মধ্যে দিয়ে বিভিন্ন বিনোদন কোম্পানী গুলো বেশ ভালো টাকা দর্শকদের কাছ থেকে ঘরে তুলছে প্রতিনিয়ত।এর জন্য অবশ্য একটা বিপুল পরিমাণ অর্থ লগ্নিও করতে হচ্ছে তাদের ।এবার বেআইনি ভাবে ,একেবারে বিনা পুঁজিতে সেই ব্যাবসা ফেঁদে উপার্জন শুরু করেছিল আলিপুরদুয়ার জেলার বারবিশার এক যুবক। বর্তমানে সাইবার জালিয়াতির কথা নতুন কিছু নয়। কিন্তু শহর ছাড়িয়ে এবার সাইবার জালিয়াতির জাল যেভাবে গাঁয়ে গঞ্জে ছড়িয়ে পড়েছে তা নিয়ে যথেষ্ট উদ্বেগ তৈরি হয়েছে জনমানসে।একটি আন্তর্জাতিক বিনোদন চ্যানেলের অ্যাপ হ্যাক করার অপরাধে আলিপুরদুয়ারের কুমারগ্রাম থানার বারোবিশা এলাকা থেকে এক যুবককে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।অভিযুক্ত ওই যুবকের নাম সুদীপ সুত্রধর।ওই হ্যাকার যুবক নিজের কেরামতিতেই তৈরি করে ফেলেছিল একটি আস্ত অ্যাপ।এবং যা মাত্র পঁচিশ টাকার বিনিময়ে বিক্রি করছিল মানুষকে ।

বিনোদন কোম্পানি সূত্রে খবর,ইতিমধ্যে সে প্রায় হাজারের ওপরে গ্রাহকও তৈরি করে ফেলেছে। ।তদন্তে নেমে পুলিশ আরও জানতে পেরেছে যে ওই অভিযুক্ত যুবকের তৈরি করা অ্যাপ সাবস্ক্রাইব করলে ভারতে নিষিদ্ধ বহু রাষ্ট্র বিরোধী চ্যানেল সহজেই দেখা যেত, যেখানে পাকিস্তানসহ মধ্য প্রচ্যের বেশ কিছু চ্যানেলও রয়েছে।এছাড়াও ওই অবৈধ অ্যাপে রয়েছে অশ্লীল ছবির প্রচুর নিষিদ্ধ চ্যানেল।তদন্তে নেমে পুলিশ যখন জানতে পারে যে, ওই যুবক মাত্র ক্লাস এইট পর্যন্ত পড়াশোনা করেছে, আর তাই দিয়েই রপ্ত করেছে সাইবার জালিয়াতি, তখন চোখ কপালে ওঠে তদন্তকারী পুলিশ আধিকারিকদের।

আন্তর্জাতিক ওই বিনোদন চ্যানেল সংস্থার সাইবার বিশেষজ্ঞরা বেশ কিছুদিন ধরেই টের পাচ্ছিলেন যে, তাঁদের চ্যানেলটি কেউ বা কারা হ্যাক করতে সমর্থ হয়েছে।তারা বিষয়টি কে ট্রাক করতে করতেই সুদীপ সুত্রধরের হদিশ পেয়ে যান।

২৭ জুন রাতে ওই বিনোদন চ্যানেলের পক্ষ থেকে কুমারগ্রাম থানায় লিখিত অভিযোগ জমা পড়ার সঙ্গে সঙ্গেই পুলিশ সাইবার অপরাধের অভিযোগে সুদীপ সুত্রধরকে গ্রেপ্তার করে।অভিযুক্তকে আলিপুরদুয়ার আদালতে পেশ করে রিমান্ডের আবেদন জানাবে পুলিশ।

 

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

3 × two =