ইংরেজিতে মাস্টার্স করা টুকটুকি দিলেন চায়ের দোকান

নিউজ ডেস্ক :: সংবাদ প্রবাহ :: কোলকাতা :: মাস্টার্স পাস করেছেন, তাও আবার ইংরেজি নিয়ে। এর পর যে কোনো গ্র্যাজুয়েট সরকারি চাকরি বা বহুজাতিক কোম্পানিতে চাকরির জন্য চেষ্টা করবেন এমনটিই স্বাভাবিক। করেছেনও, কিন্তু মেলেনি। তাই চেনা পথে না হেঁটে ভিন্ন পথ ধরলেন টুকটুকি দাস। উত্তর ২৪ পরগনার হাবরা স্টেশনের প্ল্যাটফরমে ‘এমএ ইংলিশ চায়েওয়ালি’ নামে একটি দোকান খুলেছেন এমএ পাস এ তরুণী।  টুকটুকির স্বপ্ন— নিজের দোকানকে বড় প্রতিষ্ঠান হিসেবে গড়ে তুলবেন। ‘ব্র্যান্ড’ তৈরি হবে এই নামেই।

টুকটুকি দাস রবীন্দ্রভারতী মুক্ত বিশ্ববিদ্যালয় থেকে ইংরেজিতে ৬১ শতাংশ নম্বর নিয়ে স্নাতকোত্তর পাস করেছেন বছরখানেক আগে। এর পর চাকরির পরীক্ষা দিয়েছেন একাধিক। কিন্তু কোথাও চাকরি হয়নি।

টুকটুকি বুঝতে পারলেন এভাবে চাকরির জন্য বসে থাকলে চলবে না। টুকটুকি কিছু করার চেষ্টা করছিলেন। একদিন ইউটিউবে খোঁজ পান মুম্বাইয়ের এক চায়ের দোকানের। সেখান থেকে আইডিয়া নিয়ে টুকটুকি সিদ্ধান্ত নেন চায়ের দোকান খুলবেন। কিন্তু বাবা-মা রাজি নন। পরে অনেক বুঝিয়ে বাবা-মাকে রাজি করাতে সক্ষম হন টুকটুকি।

মাত্র এক হাজার ৮০০ টাকায় দোকান ভাড়া নিয়েছেন এ তরুণী। দোকানে বিক্রি হচ্ছে ৫ থেকে ৩৫ টাকা দামের চা। টুকটুকি বলেন, প্রথম দিন অনেকে খুব উৎসাহ দিয়ে গেলেন। কিন্তু দোকান ভাড়া নিতেই আমার ভোগান্তিতে পড়তে হয়েছে। অনেকে বলেছেন, এসব তোমার দ্বারা হবে না। আমি মনে করি, কোনো কাজই ছোট নয়। ইচ্ছে আছে, চায়ের দোকানটাকে দাঁড় করিয়ে নিজস্ব ব্র্যান্ড তৈরি করব। নিজের পরিচিতি গড়ে তুলব।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

five × 3 =