একদিকে অজানা জন্তু তো অপরদিকে হাতি। লালগড় জুড়ে এখন এদের অাতঙ্কে তটস্থ গ্রামবাসী রা।

দেবেন তেওয়ারী :: সংবাদ প্রবাহ :: ঝাড়গ্রাম :: একদিকে অজানা জন্তু তো অপরদিকে হাতি। লালগড় জুড়ে এখন এদের অাতঙ্কে তটস্থ গ্রামবাসী রা। বাঁকুড়া থেকে গত কাল রাতে ১২টা হাতির একটি দল লালগড়ের বড়ডিহার জঙ্গলে ঢোকে। আজ সকালে অল্পের জন্য বেঁচে যায় এক ব্যাক্তি। এখনো বরডিহার জঙ্গলে অবস্থান করছে হাতির দলটি।

অপর দিকে জঙ্গল ছাড়িয়ে এবার গ্রামের মধ্যে পায়ের থাবা। আর তা দেখেই আতঙ্কে কন্যাবালি গ্রামের বাসিন্দারা। আজ নতুন করে বেশ কিছু জায়গায় জন্তুর পায়ের ছাপ উদ্ধার হয়। বনদফতর এর কর্মীরাও জায়গা গুলোর উপর নজর রাখছে। গত কয়েক দিন আগে একটি ছাগলের মৃতদেহ উদ্ধার এর পর এবার নতুন করে একটি ভেড়া ও একটি ছাগল নিখোঁজ হয়েছে ঐ এলাকা থেকে।

আরো একটা বিষয় নজরে আসছে যে বন্য শুয়োর জঙ্গল ছেড়ে আশ্রয় নিতে গ্রামে ঢুকে পড়ছে। জঙ্গলে কোনো সমস্যা থাকলেই এরকম ঘটনা ঘটে বলে বক্তব্য গ্রামবাসী দের।বনদফতর এর তরফ থেকে কোনো সদুত্তর না পাওয়া গেলেও তারাও মনে করছেন এখনো অদেখা এই জন্তুটি নেহাত কোনো ছোটো কিছু নয়। ২০১৮ সালের সাথে অনেক কিছুতেই মিল আছে এবারের।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

four − one =