নিজস্ব সংবাদদাতা :: সংবাদ প্রবাহ :: বাঁকুড়া :: ‘মন্দির নগরী’ হিসেবে পরিচিত বিষ্ণুপুরে এবার জেলা পুলিশের উদ্যোগে কাজ শুরু করলো ‘ট্যুরিস্ট পুলিশ’। আপাতত ৪ জন পুরুষ ও ২ জন মহিলা কর্মী এই কাজে নিযুক্ত হয়েছেন। পরবর্ত্তী সময়ে প্রয়োজনে এই সংখ্যা বাড়তে পারে বলে জানা গেছে।

বছরের বিভিন্ন সময় দেশ বিদেশের অসংখ্য পর্যটক পোড়ামাটির অপরুপ সৌন্দর্য মণ্ডিত মন্দির আর হস্তশিল্পের টানে ছুটে আসেন এক সময়ের মল্ল রাজধানী বিষ্ণুপুরে। শীতের মরশুমে সেই সংখ্যা আরো কয়েক গুণ বেড়ে যায়।

পর্যটকরা এখানে এসে রাস মঞ্চ, শ্যাম রাই মন্দির, মাকড়া পাথরে নির্মিত জোড় শ্রেণীর মন্দির, জোড় বাংলা মন্দির, দলমাদল কামান, ছিন্নমস্তা মন্দির ঘুরে লাল বাঁধের অপরুপ সৌন্দর্য উপভোগ করে বালুচরি, স্বর্ণচুরি আর পোড়ামাটির শিল্পকর্ম সংগ্রহ করে বাড়ি ফেরেন।

এবার সেই সব আগত পর্যটকদের নিরাপত্তা দেওয়ার পাশাপাশি ‘গাইড’ হিসেবেও কাজ করবেন এই ‘ট্যুরিস্ট পুলিশ’ কর্মীরা বলে জেলা পুলিশ সূত্রে জানানো হয়েছে।

বিষ্ণুপুরের এস.ডি.পি.ও কুতুবউদ্দিন খানের কথায় পর্যটকদের নিরাপত্তার কথা মাথায় রেখে ‘ট্যুরিস্ট পুলিশ’ নিয়োগ করা হলো। নিরাপত্তার পাশাপাশি পর্যটকদের সব ধরণের সহযোগীতা ও গাইডের কাজ এই ‘ট্যুরিস্ট পুলিশ’রা করবেন বলে তিনি জানান।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here