এলাকা দখলকে কেন্দ্র করে বাসন্তীর পর আবারও ব্যাপক উত্তেজনা ছড়াল উস্তিতে ।।

সুদেষ্ণা মন্ডল , দক্ষিণ ২৪ পরগনা :- এলাকা দখলকে কেন্দ্র করে বাসন্তীর পর আবারও ব্যাপক উত্তেজনা ছড়াল দক্ষিণ ২৪ পরগনার উস্তি থানার দেউলার নাজরারা মন্ডলপাড়াতে। তৃণমূলের দুই গোষ্ঠীর মধ্যে এলাকা দখলকে কেন্দ্র করে সংঘর্ষের মধ্যে পড়ে জখম পাঁচ জন । এদের মধ্যে দুই জনের অবস্থা আশংকাজনক । তাদেরকে ভর্তি করা হয় ডায়মন্ডহারবার সুপার স্পেশালিটি হাসপাতালে । শনিবার রাতে তৃণমূলের দুটি গোষ্ঠীর মধ্য এলাকা দখলকে কেন্দ্র করে শুরু হয় সংঘর্ষ । এলাকায় মুড়ি-মুড়কির মতো পড়তে থাকে বোমা ।

দুটি গোষ্ঠীর সংঘর্ষের মধ্যে পড়ে জখম হয় ফটিক মন্ডল (৫৬) নামে এক প্রাথমিক স্কুলের শিক্ষক । গুরুতর জখম অবস্থায় তাকে স্থানীয়রা উদ্ধার করে স্থানীয় বানেশ্বরপুর গ্রামীণ হাসপাতালে নিয়ে যায় । প্রাথমিক চিকিৎসা শুরু হলেও অবস্থা আশঙ্কাজনক হওয়ায় ডায়মন্ডহারবার সুপার স্পেশালিটি হাসপাতালে স্থানান্তরিত করা হয় । আহত ফটিক মন্ডল জানায় সন্ধ্যার দিকে এলাকা দখলকে কেন্দ্র করে দুটি গোষ্ঠীর মধ্যে সংঘর্ষ শুরু হয় সেই সময় আচমকা তার মাথায় বন্দুকের বাট দিয়ে আঘাত করে দুষ্কৃতীরা । ঘটনাস্থলে অচৈতন্য হয়ে পড়লে স্থানীয়রা উদ্ধার করে হাসপাতালে নিয়ে যাওয়ার ব্যবস্থা করে ।

অন্যদিকে গোষ্ঠী সংঘর্ষ এ পড়ে আহত হয় সাইদুল মোকামি নামে এক ব্যক্তি । তাকেও গুরুতর আহত অবস্থায় ডায়মন্ডহারবার মহকুমা হাসপাতালে নিয়ে আসা হয়। তৃণমূলের দুই গোষ্ঠীর সংঘর্ষে উত্তপ্ত পরিস্থিতি হওয়ায় মোতায়েন করা হয় বিরাট পুলিশবাহিনী । স্থানীয়দের দাবি দীর্ঘদিন ধরেই এলাকা দখলকে কেন্দ্র করে তৃণমূলের দুই যুব নেতা ইমরান হাসান ও জয়ন্ত চৌধুরীর বিবাদ দীর্ঘদিনের। সেই বিবাদের জেরে এর আগেও একাধিকবার এলাকায় সংঘর্ষ হয়েছে। তবে এইভাবে বোমাবাজি কখনও হয়নি বলেই জানিয়েছেন বাসিন্দারা।

ঘটনায় মগরাহাট পশ্চিমের তৃণমূল বিধায়ক গিয়াসুদ্দিন মোল্লা অবশ্য দাবি করেছেন এরসঙ্গে শাসকদলের কোনও যোগ নেই। “এই ঘটনায় এলাকার দুই দুষ্কৃতী জড়িয়ে । ঘটনায় তৃণমূলের কেউ যুক্ত নয় । পুলিশ গোটা ঘটনা তদন্ত করছে।” ঘটনার তদন্তে নামলেও এই ঘটনায় এখনও পর্যন্ত কাউকেই গ্রেফতার করতে পারেনি পুলিশ ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

15 − 3 =