পদ্মশ্রী পুরস্কারের আসরে খালি পায়ে কে এই বৃদ্ধা ?

নিউজ ডেস্ক :: সংবাদ প্রবাহ :: নয়াদিল্লি ::  রাষ্ট্রীয় অনুষ্ঠান। অনুষ্ঠানে উপস্থিত ভারতের রাষ্ট্রপতি, প্রধানমন্ত্রীসহ গুরুত্বপূর্ণ ব্যক্তিরা। অনুষ্ঠানটি মর্যাদাপূর্ণ ‘পদ্ম পুরস্কার’ বিতরণের। সেখানে এসেছেন ৭৭ বছর বয়সী এক আদিবাসী বৃদ্ধা। তাঁর পা খালি। পরনে নিজ আদিবাসী গোষ্ঠীর ঐতিহ্যবাহী পোশাক। অনুষ্ঠানস্থলে অতিথির আসনে থাকা প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিসহ অন্যদের অভিবাদন জানান তিনি। তাঁরাও তাঁকে অভিবাদন জানান। এই দৃশ্য সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ছড়িয়ে পড়েছে। অনেকে একে বলছেন, দিনের সেরা ছবি।

এই বৃদ্ধার নাম তুলসী গৌড়া। তিনি একজন পরিবেশবাদী। ২০২০ সালের ‘পদ্মশ্রী পুরস্কার’ পেয়েছেন তিনি। তুলসীর বাড়ি কর্ণাটক রাজ্যের হান্নালি গ্রামে। হালাক্কি আদিবাসী গোষ্ঠীর সদস্য তিনি। তুলসীর জন্ম একটি দরিদ্র পরিবারে। মাত্র দুই বছর বয়সে বাবাকে হারান তিনি। এ কারণে ছোট বয়সেই আয়রোজগারে লেগে পড়তে হয় তাঁকে। তিনি তাঁর মায়ের সঙ্গে স্থানীয় একটি নার্সারিতে কাজ শুরু করেন। স্কুলের আঙিনায় পা রাখার সুযোগ হয়নি তুলসীর। অল্প বয়সেই তাঁর বিয়ে হয়।

সবকিছু ছাপিয়ে তুলসীর বড় পরিচয়—তিনি পরিবেশ নিয়ে কাজ করেন। ছয় দশকের বেশি সময় ধরে পরিবেশ রক্ষায় কাজ করছেন তিনি। এই সময়ে ৩০ হাজারের বেশি গাছের চারা রোপণ করেছেন তুলসী।

এর পাশাপাশি তুলসী দেশটির বন বিভাগের নার্সারিগুলো দেখাশোনা করছেন। উদ্ভিদ নিয়ে অগাধ জ্ঞানের জন্য তাঁর খ্যাতি রয়েছে। এ কারণে তাঁকে ‘অরণ্যের এনসাইক্লোপিডিয়া’ বলা হয়। এই অবদানের স্বীকৃতি হিসেবে তাঁকে মর্যাদাপূর্ণ ‘পদ্মশ্রী পুরস্কার’ দেওয়া হয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

two × 3 =