উদয় ঘোষ :: সংবাদ প্রবাহ :: বর্ধমান :: রায়না থানার দেবী বরপুরে এক চাষির অস্বাভাবিক মৃত্যু হয়ছে। শুক্রবার রাতে ঘরে বাঁশের কাঠামোয় দড়ি দিয়ে গলায় ফাঁস লাগানো অবস্থায় তাঁকে ঝুলতে দেখে পরিবারের লোকজন। খবর পেয়ে পুলিশ দেহটি উদ্ধার করে ময়না তদন্ত পাঠায়। মৃতের নাম জয় দেব ঘোষ (৪৩)। পরিবার সূত্রে জানা গিয়েছে তিনি এইবার নিজের তিন বিঘে জমিতে বড় ধান চাষ করেছিলেন।চাষ করার জন্যে তিনি মহাজনের কাছে ঋণ নিয়ে ছিলেন।

অকাল বৃষ্টি তে ধান নষ্ট হয়ে যায়।এতে মানসিক ভাবে তিনি ভেঙে পড়ে।একদিকে চাষে লোকসান,অন্য দিকে ঋণের টাকার পরিশোধের চিন্তা দুই মিলিয়ে মানসিক ভাবে ভেঙে পড়ে । মানসিক অবসাদে তিনি আত্মঘাতী হয়েছেন।মৃত এর দাদা নন্দ গোপাল ঘোষ বলেন ভাই মহাজনের কাছে ঋণ নিয়ে তিন বিঘা জমিতে বোর চাষ করে ছিলো।

অতি বৃষ্টির কারণে ধান নষ্ট হয়ে যায়।চাষ ছাড়া আর কিছু করে না।একদিকে চাষে লোকসান, অন্যদিকে দেনা মেটানোর দুশ্চিন্তায় মানসিক ভাবে ভেঙে পড়ে আত্মঘাতী হয়েছেন।

অন্য দিকে রায়না থানার বন্থিরে এক চাষির অস্বাভাবিক মৃত্যু হয়েছে।শনিবার নিজের জমির পাশে আম গাছে দড়ি দিয়ে গলায় ফাঁস লাগানো অবস্থায় তাঁকে ঝুলতে দেখে স্থানীয় বাসিন্দারা।দড়ি কেটে নামিয়ে তরি ঘড়ি তাঁকে বর্ধমান মেডিক্যেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে আসেন।চিকিৎসক মৃত বলে ঘোষণা করেন। মৃত এর নাম গণেশ নারায়ণ ঘোষ ৬৪।

পরিবার সূত্রে জানা গিয়েছে তিনি এইবার তিন বিঘে জমিতে চাষ করে ছিলেন।তার মধ্যে 2 বিঘে জমিতে বোরো ধান ও1বিঘে জমিতে আলু চাষ করে ছিলেন।চাষের জন্যে মহাজনের কাছে ঋণ নিয়ে ছিলেন।কিন্তু অতি বৃষ্টি র কারণে ধান ও আলু নষ্ট হয়ে যায়।চাষে লোকসান ও মহাজনী ঋণ ।এই দুই কারণে মানসিক অবসাদে তিনি আত্মঘাতী হয়েছেন

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here