নিজস্ব সংবাদদাতা :: সংবাদ প্রবাহ :: বর্ধমান :: পূর্ব বর্ধমানের রেনু খাতুনের ছায়া এবার কালনায়। স্বামীর আক্রোশের শিকার স্ত্রী। নিজের স্ত্রীকে তরবারি দিয়ে হাত কেটে নেওয়ার চেষ্টা স্বামীর।ঘটনাটি এদিন শনিবার রাতে পূর্ব বর্ধমান জেলার কালনার রাজীব গান্ধী মোড় এলাকার । আক্রান্ত ওই মহিলার নাম অপরূপা হালদার ।

বাড়ি কালনার কাটিগঙ্গা এলাকায়. আগামিকাল মহালয়ার জন্য মাসতুতো দাদার সাথে অপরূপা দেবীর মেয়ে বাজি কিনতে বাজারে যাচ্ছিল ।এমন সময় মেয়ে কেন মাসির ছেলের সাথে বাজারে বেরোবে, এই বলে ওই মাসতুত দাদাকে রাস্তার মধ্যেই মারধর করে অভিযুক্ত ওই ব্যক্তি বিশ্ব   দাস ।

কেন তাঁর দিদির ছেলেকে মারধর করেছো, এটি তার স্ত্রী তার স্বামীকে বলতে গেলেই ঘরে থাকা তরবারি দিয়ে হাত কেটে নেওয়ার চেষ্টা করে তার স্বামী।.

গুরুতর জখম অবস্থায় কালনা মহকুমা হসপিটালে ভর্তি করা হয় ওই মহিলা অপরূপা দেবীকে। অপরূপা দেবী জানান, স্বামীর অত্যাচারে অনেকদিন আগেই শ্বশুরবাড়ি ছেড়ে বাপের বাড়িতে এসে তিনি থাকতেন, তিনি কালনায় বসবাস করেন দেখে কাকদ্বীপ থেকে তাঁর স্বামীও কালনায় এসে ভাড়া নিয়ে বসবাস শুরু করে।

তাকে প্রায়শই খুনের হুমকি দিত তার স্বামী বিশ্ব দাস. আজ একটি সুযোগ বুঝেই তার ওপর আক্রমণ করে বসে তাঁর স্বামী।ঘটনায় ছড়িয়েছে চাঞ্চল্য।