বর্ধমান স্টেডিয়ামে কয়েক হাজার লোক নিয়ে বিজয়া সম্মেলন করল খোদ শাসকদল তৃণমূল ।

উদয় ঘোষ :: সংবাদ প্রবাহ :: বর্ধমান :: করোনা সংক্রমণ বাড়ছে। রাজ্য সরকারের নির্দেশে কোভিড বিধিনিষেধ চলছে। জারি হয়েছে নৈশ কার্ফু। তার মধ্যেও কয়েক হাজার লোক নিয়ে বিজয়া সম্মেলন করল খোদ শাসকদল। কার্যত মুখ্যমন্ত্রীর নির্দেশ অমান্য করল দলের বিধায়ক, নেতা কর্মীরা।

রবিবার বর্ধমান শহরের অরবিন্দ স্টেডিয়ামে প্রায় হাজার খানেক তৃণমূল কর্মী ভীড় করেন। বেশিরভাগ মানুষের মুখে মাস্ক ছিল না। যদিও মাইকে মাস্ক ব্যবহার করার কথা ঘোষণা করা হয়। কিন্তু তাতে কি? করোনা পরিস্থিতিতে কেন জেলার বিজয়া সম্মেলনের আয়োজন হল? সেই নিয়ে উঠছে প্রশ্ন। কিন্তু শাসকদল যখন নিয়ম ভাঙছে তখন কে আর কি করবে?

রবিবার অরবিন্দ স্টেডিয়ামে জেলা তৃণমূল কংগ্রেসের উদ্যোগে বিজয়া সম্মেলনী অনুষ্টিত হয়। সম্মেলনে ছিলেন জেলা পরিসদ সভাধিপতি শম্পা ধাড়া, সহ সভাধিপতি দেবু টুডু, জেলা পরিসদ মেন্টর উজ্জ্বল প্রামাণিক সহ জেলার বিধায়ক সহ অন্যান্য তৃণমূল কংগ্রেসের নেতা কর্মীরা। প্রত্যেকেই নিজেদের বক্তব্যে বিজয়ার শুভেচ্ছা বিনিময় করেন। নেতারা বলেন দলের সামনেই পৌরসভার নির্বাচন। তারপর পঞ্চায়েত নির্বাচন। আমাদের ঐক্যবদ্ধ হয়ে লড়াই করতে হবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

five × four =