নিজস্ব সংবাদদাতা :: সংবাদ প্রবাহ :: নয়াদিল্লি :: মৃত্যুদণ্ডের বিরুদ্ধে আবেদনের জন্য কুলভূষণ যাদবকে সুযোগ দিতে একটি বিল পাশ হয়েছে পাকিস্তানের সংসদে। বুধবার সংসদের যৌথ অধিবেশনে ‘আন্তর্জাতিক ন্যায়বিচার আদালতে (পর্যালোচনা এবং পুনর্বিবেচনা) বিলটি পাশ হয়ে যায়। যদিও বিশেষজ্ঞদের বক্তব্য, সেই বিল পাশের ফলে পাকিস্তানের আদালতে মৃত্যুদণ্ডের বিরুদ্ধে আবেদন জানানোর আইনি অধিকার পেলেন কুলভূষণ। খবর হিন্দুস্তান টাইমস।

গত বছর পাকিস্তান যে অর্ডিন্যান্স জারি করেছিল, সেই ধাঁচেই নয়া আইন তৈরি করা হয়েছে। ২০১৯ সালে আন্তর্জাতিক ন্যায় আদালতের (আইসিজে) রায় কার্যকর করতে যে বিল গত জুনেই পাকিস্তানের সংসদের নিম্নকক্ষের বাধা পার করেছিল। কিন্তু নির্ধারিত ৯০ দিনের মধ্যে উচ্চকক্ষে পাশ হয়নি। সেই পরিস্থিতিতে বুধবার সংসদের যৌথ অধিবেশনে বিল উত্থাপন করেন পাকিস্তানের নয়া আইনমন্ত্রী ফারোঘ নাসিম। এবার অবশ্য কোনও বাধা হয়নি। বিশেষজ্ঞদের মতে, নয়া আইন কার্যকর হওয়ার ফলে সামরিক আদালতের মৃত্যুদণ্ডের রায়ের বিরুদ্ধে পাকিস্তানি হাইকোর্টে আবেদন জানাতে পারবেন কুলভূষণ।

 

উল্লেখ্য, গুপ্তচরবৃত্তির অভিযোগে ২০১৬ সালে বালুচিস্তান থেকে কুলভূষণকে গ্রেপ্তার করে পাকিস্তান। যদিও সেই দাবি উড়িয়ে দিয়ে ভারত জানায়, ইরানে ব্যবসা রয়েছে প্রাক্তন ভারতীয় নৌ-বাহিনীর ওই অফিসারের। সেখান থেকেই তাকে গ্রেপ্তার করেছে পাকিস্তান। এরপর ২০১৭ সালের এপ্রিলে তার ফাঁসির সাজা ঘোষণা করে পাকিস্তানের সামরিক আদালত। সে বছর মে’তে সেই রায়ের বিরুদ্ধে আন্তর্জাতিক ন্যায় আদালতে (আইসিজে) যায় নয়াদিল্লি। গত বছর জুলাইয়ে পাকিস্তানকে কুলভূষণের মৃত্যুদণ্ডের রায়ের পুনর্বিবেচনার নির্দেশ দেয় আইসিজে। সেইসঙ্গে নির্দেশ দেয়, কুলভূষণের মৃত্যুদণ্ডের রায় পুনর্বিবেচনা করার সময় ভারতেরও প্রতিনিধি থাকতে হবে সেখানে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here