নিউজ ডেস্ক :: সংবাদ প্রবাহ :: নয়াদিল্লি :: বলিউড তারকা শাহরুখ খানের ছেলে আরিয়ান খানের বিরুদ্ধে তদন্তকারী ও মাদক নিয়ন্ত্রণ ব্যুরোর (এনসিবি) কর্মকর্তা সমীর ওয়াংখেড়ে দিল্লি পৌঁছেছেন। মানুষকে একের পর এক ভুয়া মামলায় ফাঁসানো ও অবৈধভাবে অর্থ লেনদেনের অভিযোগ নিয়ে বিতর্ক চলার মধ্যে স্থানীয় সময় গতকাল সোমবার সন্ধ্যায় দিল্লিতে পৌঁছান তিনি। তবে ওয়াংখেড়ের দাবি, তাঁকে দিল্লিতে কোনো সংস্থার পক্ষ থেকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য ডেকে পাঠানো হয়নি। কিছু কাজের জন্যই তিনি রাজধানীতে এসেছেন।

সংবাদমাধ্যম এনডিটিভিকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে ওয়াংখেড়ে আরও বলেছেন, নিজের বিরুদ্ধে ওঠা অভিযোগের তদন্তে শতভাগ সহযোগিতা করবেন তিনি।বানখেড়ে এমন সময়ে দিল্লি ভ্রমণ করছেন, যখন কিনা মহারাষ্ট্রের মন্ত্রী ও কংগ্রেস নেতা নবাব মালিকের সঙ্গে তাঁর বাগ্‌যুদ্ধ চলছে। নবাব মালিক অভিযোগ তুলেছেন, জাহাজ থেকে মাদক জব্দ করার মামলাটি ‘ভুয়া’। তা ছাড়া বিজেপি ও এনসিবি মুম্বাইয়ে সন্ত্রাসবাদের বিস্তার ঘটাচ্ছে বলেও অভিযোগ করেন তিনি। এ ছাড়া মাদক মামলার এক সাক্ষীর জবানবন্দিকে ঘিরেও বিতর্কের মধ্যে রয়েছেন বানখেড়ে। ওই সাক্ষী তাঁর বিরুদ্ধে ঘুষ লেনদেনের অভিযোগ তুলেছেন।

গতকাল নবাব মালিক এনসিবি কর্মকর্তা ওয়াংখেড়ের জন্মসংক্রান্ত একটি নথির ছবি টুইটারে পোস্ট করেছেন। তিনি লিখেছেন, ‘জালিয়াতির শুরুটা এখান থেকেই।’নবাব মালিককে পাল্টা আক্রমণ করে একটি বিবৃতি দিয়েছেন ওয়াংখেড়ে। সেখানে তিনি লিখেছেন, ‘আমার ব্যক্তিগত নথি প্রকাশ করা মানহানিকর এবং আমার পরিবারের ব্যক্তিগত গোপনীয়তার ওপর অমূলক হস্তক্ষেপ। আমার, পরিবারের, বাবার এবং প্রয়াত মায়ের সম্মানহানির উদ্দেশ্যে এ কাজ করা হয়েছে।’

মন্ত্রী নবাব মালিকের কর্মকাণ্ডের কারণে তাঁর পরিবার প্রচণ্ড মানসিক চাপের মধ্যে আছে বলেও দাবি করেন ওয়াংখেড়ে।

 

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here