সুদেষ্ণা মন্ডল :: সংবাদ প্রবাহ :: কুলতলী :: কুলতলির জামতলা ভগবান চন্দ্র হাই স্কুলের প্রধান শিক্ষক শান্তনু ঘোষাল স্কুলের অন্যান্য শিক্ষক শিক্ষিকাদের নিয়ে ছাত্র-ছাত্রীদের বাড়িতে গেলেন। নভেম্বর মাসের ১৬ তারিখ থেকে স্কুলে খুললেও নবম একাদশ-দ্বাদশ শ্রেণীর অধিকাংশ ছাত্রছাত্রীই স্কুলে উপস্থিত হচ্ছে না। যা চিন্তা বাড়ায় শিক্ষকদের ।অবশেষে বুধবার প্রধান শিক্ষকের উদ্যোগে কুলতলীর বিভিন্ন প্রান্তে স্কুলের ছাত্র-ছাত্রীদের বাড়িতে বাইক নিয়ে রওনাদেন প্রধান শিক্ষক।

রেজিস্ট্রেশন তুলে দিলেন ছাত্র ছাত্রীদের হাতে। অভিভাবকদের আবেদন করেন ছাত্র-ছাত্রীদের স্কুলে পাঠানোর জন্য । স্কুলের নবম ও একাদশ শ্রেণির অনেক ছাত্রী দীর্ঘ লকডাউন সংসারের অনটনের জন্য বিয়ে দিয়ে দিয়েছেন পরিবারের লোকজন । যা চিন্তার কারণ সমাজের জন্য । জামতলা ভগবান চন্দ্র হাই স্কুলের বাল্যবিবাহ রোধের জন্য কন্যাশ্রী টিম তৈরি করা হয়েছিল। যা কুলতলির একাধিক বাল্যবিবাহ বন্ধ করেছে ।

দীর্ঘ লকডাউন চলার কারণে ভেঙে গেছে সেই টিম। বাল্যবিবাহ রোধ করার জন্য অভিভাবক এগিয়ে আসার অনুরোধ জানান প্রধান শিক্ষক ।সুন্দরবনের প্রত্যন্ত এলাকা কুলতলী অনেকেই আবার অর্থ উপার্জনের জন্য বাবা-মার সঙ্গে কাজে গিয়েছে অন্যত্র।তাদেরকেও ফিরিয়ে আনার ব্যবস্থা করছেন শিক্ষকরা।