নিউজ ডেস্ক :: সংবাদ প্রবাহ :: নয়াদিল্লি :: সোশ্যাল মিডিয়া এমন এক প্ল্যাটফর্ম, যেখানে একদিকে এটি একে-অপরের সঙ্গে সংযোগ করায় আবার অন্যদিকে এটি বেআইনি কাজ করার অন্যতম প্ল্যাটফর্মে পরিণত হয়ে গিয়েছে। সেরকমই প্রমাণ পাওয়া গেল দিল্লির রাজ্য মহিলা আয়োগের কমিশনার স্বাতী মালিওয়ালের সঙ্গে হওয়া এক ঘটনার মধ্যে দিয়ে। তাঁর সঙ্গে ঘটে যাওয়া এই ঘটনা শুধু খারাপ ঘটনাই নয়, বরং আমরা কোন পথে যাচ্ছি তা ভাবতে হবে। আসলে স্বাতী মালিওয়াল জাস্ট ডায়ালে ফোন করে স্পা মাসাজের সম্পর্কে খোঁজখবর নিতে চেয়েছিলেন, এরপর তাঁকে ১৫০-এর বেশি কলগার্লসের রেট জানানো হয়। যা শোনার পর রীতিমতো চমকে যান মহিলা কমিশনের কমিশনার।

এই খবর স্বাতী মালিওয়াল নিজে টুইট করে দিয়েছেন। স্বাতী মালিওয়াল তাঁর টুইটে বলেছেন, ‘‌আমরা জাস্ট ডায়ালে ফোন করে নকল স্পা মাসাজ সম্পর্কে জিজ্ঞাসা করি, তখন আমাদের ফোনে এমন ৫০টি মেসেজ আসে যাতে ১৫০ টিরও বেশি মেয়ের রেট বলা হয়েছিল। আমি জাস্ট ডায়াল এবং দিল্লি পুলিশের ক্রাইম ব্রাঞ্চে সমন জারি করছি, এই ব্যবসার প্রচারে জাস্ট ডায়ালের ভূমিকা কী?

দিল্লি রাজ্য মহিলা কমিশনের কমিশনার স্বাতী মালিওয়াল জানিয়েছেন যে এই মামলার তদন্ত দিল্লি পুলিশকেই করতে হবে তাই তাদেরকেই নোটিস পাঠানো হয়েছে। এই মামলায় জাস্ট ডায়াল নিজেই একটি পার্টি। স্বাতী মালিওয়াল বলেন, ‘‌যতটুকু সম্ভব ব্যবস্থা নেব। দোষীদের শাস্তি হওয়া উচিত। এটা সহ্য করা হবে না।’‌

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here